‘আটলান্টিকে ইরানি জাহাজের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে পারবে না আমেরিকা’

ইরান উত্তর আটলান্টিক মহাসাগরে যে জাহাজ পাঠিয়েছে তার বিরুদ্ধে আমেরিকা আন্তর্জাতিক আইন অনুসারে সরাসরি কোনো ব্যবস্থা নিতে পারবে না।

বৃহস্পতিবার মার্কিন ম্যাগাজিন ফরেন পলিসি তাদের এক কলামে এ বক্তব্য করেছে। ম্যাগাজিনটি আরো বলেছে, যদি ইরানি জাহাজ মার্কিন নিষেধাজ্ঞা লঙ্ঘন করে তাহলেও আমেরিকা কোনো ব্যবস্থা নিতে পারবে না।

গত মাসের শেষ দিকে মার্কিন ম্যাগাজিন পলিটিকো জানিয়েছিল, মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা কমিউনিটি দুই সপ্তাহ ধরে ইরানের দুটি জাহাজ পর্যবেক্ষণ করেছিল যাদের চূড়ান্ত গন্তব্য হতে পারে ভেনেজুয়েলা।
এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত তিন ব্যক্তির উদ্ধৃতি দিয়ে আমেরিকান নিউজ ওয়েবসাইট জানিয়েছিল, ইরানের মাকরান পোর্ট শিপ এবং অভ্যন্তরীণভাবে নির্মিত শাহান্দ ডেস্ট্রয়ার আফ্রিকার পূর্ব উপকূল ধরে দক্ষিণের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।

গত ৩১ মে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবজাদে বলেছেন, আন্তর্জাতিক পানিসীমায় ইরানের উপস্থিতি সবসময় আছে এবং আন্তর্জাতিক আইন থেকেই ইরান এই অধিকারপ্রাপ্ত।

তিনি বলেন, কোনো দেশ এই অধিকার লঙ্ঘন করতে পারে না। যেকোন ভুল হিসাব-নিকাশের ব্যাপারে আমেরিকাকে সতর্ক করে দিয়ে খাতিবজাদে বলেন, “যারা কাঁচের ঘরের মধ্যে বসবাস করছে তাদেরকে সতর্ক হওয়া উচিত।”

এরপর মার্কিন ম্যাগাজিন পলিটিকো অজ্ঞাত কয়েকজন মার্কিন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বলেছে, ইরানি ওই দুটি জাহাজে করে ভেনেজুয়েলার জন্য অস্ত্র নিয়ে যাওয়া হচ্ছে।

পলিটিকো বলছে, ইরানি জাহাজের বিরুদ্ধে যদি আমেরিকা সরাসরি কোনো ব্যবস্থা নেয় তাহলে তার জন্য চরম মূল্য দিতে হবে। ইরানি জাহাজের বিরুদ্ধে কোনোরকম ব্যবস্থা নেয়া হলে তা হবে বেআইনি।

সূত্র: পার্সটুডে।

Source link

admin

Read Previous

করোনা মোকাবিলায় ব্যর্থ হয়ে বিরোধীদলকে দমন করছে সরকার: ফখরুল

Read Next

২৪ হাজার বছর পর বরফে জমে থাকা জীবন্ত জীবের খোঁজ!