চীনকে ‘টেক্কা’ দিতে ভারতীয় নৌ বাহিনীতে নতুন সংযোজন

চীনকে ‘টেক্কা’ দিতে ভারতীয় নৌ বাহিনীতে অত্যাধুনিক জাহাজ সংযুক্ত করা হচ্ছে। এটি নজরদারি চালাতে পারবে কৃত্রিম উপগ্রহ, পরমাণু ক্ষেপণাস্ত্রের ওপর। চিহ্নিত করতে পারবে শত্রুপক্ষের সাবমেরিন।

জাহাজটি ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট অর্গানাইজেশন এবং ন্যাশনাল টেকনিকাল রিসার্চ অর্গানাইজেশনের সহায়তায় তৈরি করেছে হিন্দুস্তান শিপইয়ার্ড।

শিগগিরই বিশাখাপত্তনম থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে ভারতীয় নৌ বাহিনীতে অন্তর্ভুক্ত করা হবে জাহাজটি। হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, আগামী ১০ সেপ্টেম্বর ভারতের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভালের হাত ধরেই নৌ বাহিনীতে আনুষ্ঠানিকভাবে অন্তর্ভুক্ত হবে সেই অত্যাধুনিক জাহাজ।

আপাতত বিশ্বে এরকম জাহাজ আছে শুধুমাত্র ফ্রান্স, যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটেন, রাশিয়া এবং চীনের কাছে। জাহাজটি সম্পর্কে প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ১০ হাজার টনের জাহাজটি ভবিষ্যতে ভারতের ক্ষেপণাস্ত্র-বিরোধী শক্তির ক্ষেত্রে অন্যতম বড়সড় পদক্ষেপ হতে চলেছে।

এটি ভারতের বিভিন্ন শহর এবং সামরিক ঘাঁটি লক্ষ্য করে ছোড়া ক্ষেপণাস্ত্রের বিষয়ে আগেভাগেই সতর্কবার্তা দেবে। জাহাজটিতে ‘অ্যাক্টিভ স্ক্যান অ্যারে র‍্যাডার’ আছে, যা ভারতের ওপর নজরদারি চালানো উপগ্রহকে ধরে ফেলবে। পুরো এলাকায় ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষার উপর তীক্ষ্ণ নজর রাখবে।

সেইসঙ্গে ভারতীয় অঞ্চলের ম্যাপিং করবে এই জাহাজ। সংশ্লিষ্ট মহলের বরাতে খবরে বলা হয়, ইন্দো-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে নজরদারির ক্ষেত্রে এই জাহাজের ভূমিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ হবে।

যখন সমুদ্র-নির্ভর সামরিক ক্ষমতা বাড়ানোর পথে হাঁটছে চীন, তখন দ্রুত গোয়েন্দাবার্তা সংগ্রহ করে রিয়েল টাইমে সতর্ক করতে পারবে এই জাহাজ।

Source link

admin

Read Previous

পরিবহন খাতে চাঁদাবাজি বন্ধ করতে হবে: শাজাহান খান

Read Next

যশোরে আইনজীবীর উপর হামলার ঘটনায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ