যশোরে আ’ লীগের দুই গ্রুপের নৌকা প্রতীকের পক্ষে-বিপক্ষে অভিযোগ

যশোর সদর উপজেলার চাঁচড়া ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের পক্ষে বিপক্ষে অভিযোগ করেছে আওয়ামী লীগের দুইটি অংশ। সোমবার প্রেসক্লাব যশোরে পরপর দুইটি সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে ওই অভিযোগ করা হয়।

যশোর সদর উপজেলার চাঁচড়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগের মনোনীত নৌকার প্রার্থী সেলিম রেজা পান্নুকে খুনি, সন্ত্রাসী চাঁদাবাজ আখ্যায়িত করে তার মনোনয়ন বাতিল দাবি করেছেন ওই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের একটি পক্ষ।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, চাঁচড়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মো ওয়াজেদ আলী মোড়ল। এসময় উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক বলে দাবিদার আব্দুল মান্নান ভূইয়া।

সংবাদ সন্মেলনে আসন্ন নির্বাচনে চাঁচড়া ইউনিয়ন থেকে চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশীরা উপস্থিত ছিলেন। মনোনয়ন প্রত্যাশীরা হলেন, আনারুল করীম আনু, মোহাম্মদ কবিরুজ্জামান, শামীম রেজা, ফিরোজ কবীর পিকুল, মনজুরে মাহবুব, সাজ্জাদ হোসেন বাবু ও শেখ সাদিয়া মৌরীনের পক্ষে আব্দুর রাজ্জাক ফুল।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলের মনোনয়নেরর ব্যাপারে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় সর্বসম্মতিক্রমে যে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের নামের তালিকা পাঠানো হয় তাতে সেলিম রেজা পান্নুর নাম উলে­খ ছিল না।

অথচ কে বা কারা তার নাম প্রস্তাব করে আওয়ামীলীগের মনোনয়ন বোর্ডে পাঠিয়েছে। অথচ এই ইউনিয়নের অনেক ত্যাগী ও পরীক্ষিত নেতাকে উপেক্ষা করে সেলিম রেজা পান্নুকে আওয়ামীলীগের দলীয় প্রতীক নৌকা দেয়া হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে বলা হয় সেলিম রেজা পান্নু ২০১৯ সালের ২৪ জুলাই প্রকাশ্য দিবালোকে চাঁচড়া এলাকায় মৎস্য ব্যবসায়ী ইমরোজকে কুপিয়ে হত্যা করে। এঘটনায় তার বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশীট দাখিল হয়েছে। এর বাইরেও অস্ত্র ও চাঁদাবাদির অভিযোগ রয়েছে তার বিরুদ্ধে।

সংবাদ সম্মেলন থেকে অবিলম্বে তার মনোনয়ন বাতিল করে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশীদের নৌকা প্রতীক দেয়ার দাবি জানানো হয়। অপরদিকে এ সংবাদ সম্মেলনের পর পরই চাঁচড়া ইউনিয়নে নৌকার মনোনীত প্রার্থী সেলিম রেজা পান্নুর পক্ষে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের অপর পক্ষ।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি আজাহার আলী মোল­া।
এসময় উপস্থিত ছিলেন, ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক দাবিদার মশিয়ার রহমান, সহসভাপতি আজাহার আলী মোল­া, বজলুর রহমান, আব্দুল আজিজ বিশ্বাস,

ফিরোজ হোসেন, আব্দুর রাজ্জাক, আবুল হোসেন, আব্দুর রশিদ, রফিকুল ইসলাম, মতিয়ার রহমান, আব্দুল মাজেদ, কাজী বেদারুল কাদের স্বপন, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সদস্য মাহবুব আলম বুলুসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, সেলিম রেজা পান্নু আওয়ামী লীগের নিবেদিত কর্মী।

তিনি জেলা শ্রমিকলীগের শ্রম ও কল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক। দলীয় সাংগাঠনিক কর্মকান্ড ও করোনাকালিন সময়ে ইউনিয়নের সাধারণ মানুষের পাশে বিশেষ ভূমিকা রাখায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাকে নৌকা প্রতীক দিয়ে সম্মানিত করেছেন।

এখন একশ্রেণির ষড়যন্ত্রকারীরা তার মনোনয়ন ছিনিয়ে নিয়ে নৌকার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে। যারা পান্নুর বিরুদ্ধে অভিযোগ করেছেন তারা বিএনপি-জামায়াতের নেতাকর্মী। তারা ভাড়াটিয়া হিসাবে দলের মধ্যে ঢুকে আওয়ামীলীগ ও নৌকাকে ক্ষতি করছে।

এক প্রশ্নের জবাবে নেতৃবৃন্দ বলেন, সেলিম রেজা পান্নুর বিরুদ্ধে হত্যা ও হত্যা প্রচেষ্টার অভিযোগে যে মামলা হয়েছে তা একই ষড়যন্ত্রের অংশ। সংবাদ সম্মেলন থেকে এসব ষড়যন্ত্র পরিহার করে নৌকার পক্ষে নির্বাচনী মাঠে অংশগ্রহণের জন্য সবার প্রতি আহবান জানানো হয়।

Source link

admin

Read Previous

অর্থ পাচারকারীদের বিরুদ্ধে হাত গুটিয়ে বসে থাকা নয় : হাইকোর্ট

Read Next

প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে দেখা করতে চান মাহি