হামলা ঠেকাতে এবার ইউক্রেনে অস্ত্র পাঠাচ্ছে জার্মানি-ফ্রান্স

রাশিয়ার আগ্রাসন রুখতে ইউক্রেনে অস্ত্র পাঠানোর ঘোষণা দিয়েছে জার্মানি ও ফ্রান্স। এ ঘোষণার অংশ হিসেবে ১ হাজার ট্যাংকবিধ্বংসী অস্ত্র ও ৫০০ ভূমি থেকে আকাশে উৎক্ষেপণযোগ্য ক্ষেপণাস্ত্র পাঠাচ্ছে ইউরোপের অন্যতম প্রভাবশালী দেশ জার্মানি।

শনিবার ২৬ ফেব্রুয়ারি বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। নিজেরা অস্ত্র পাঠানোর ঘোষণা দেওয়ার আগে জার্মান সরকার তৃতীয় কোনো দেশের জার্মানির তৈরি সমরাস্ত্র ইউক্রেইনে পাঠাতে যে বাধা ছিল তা প্রত্যাহার করে নেয়ার ঘোষণা দেয়।

জার্মানি দীর্ঘদিন ধরে কোনো যুদ্ধক্ষেত্রে অস্ত্র রপ্তানি না করার নীতি গ্রহণ করে আছে। এমনকি তৃতীয় কোনো দেশকে জার্মানির তৈরি সমরাস্ত্র যুদ্ধক্ষেত্রে ব্যবহার বা পাঠানোর আগে বার্লিনের অনুমতি নিতে হয় এবং তারা সাধারণত ওই অনুমতি দেয় না।

ইউক্রেনে অস্ত্র পাঠানোর সিদ্ধান্ত তাদের ওই নীতিতে পরিবর্তন আনার ইঙ্গিত দিচ্ছে। ইউক্রেনে অস্ত্র পাঠানো নিয়ে চ্যান্সেলর ওলাফ শলৎস বলেন, বর্তমান পরিস্থিতিতে ইউক্রেনের পাশে দাঁড়ানো আমাদের দায়িত্ব।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের আগ্রাসনের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলার জন্য ইউক্রেনের জন্য সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো আমরা। জার্মান সরকার কিয়েভে অস্ত্র পাঠানোর সিদ্ধান্ত অনুমোদন করেছে।

আমরা কিয়েভে এক হাজার ট্যাংকবিধ্বংসী অস্ত্র ও ৫০০ ক্ষেপণাস্ত্র পাঠাচ্ছি। ইউক্রেনে সামরিক সরঞ্জাম ও জ্বালানি পাঠাচ্ছে ফ্রান্স। একই সঙ্গে দেশটি রাশিয়ার ওপর অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা আরোপ জোরদার করবে।

ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট দপ্তর এলিসি থেকে দেয়া বিবৃতিতে এ তথ্য জানানো হয়। এলিসির বিবৃতিতে বলা হয়, নতুন নিষেধাজ্ঞায় রাশিয়ার সম্পদ ফ্রিজ করা হবে এবং সুইফট নিয়ে ইউরোপীয় অংশীদারদের সঙ্গে আন্তঃব্যাংক পদ্ধতি কার্যকরে আলোচনা করা হবে।

Source link

admin

Read Previous

প্রধানমন্ত্রী বিডিআর বিদ্রোহ দমনে সেনাবাহিনী পাঠাননি: ফখরুল

Read Next

রাজধানীতে মাদকবিরোধী অভিযানে আটক ৬১